উপজেলা নির্বাহী অফিসারের হস্তক্ষেপে তেরখাদায় বাল্য বিয়ে বন্ধ, বর,কাজী ও স্বাক্ষীকে জরিমানা

জাতীয় সংবাদ সকল সংবাদ সংবাদ
Share on Social Media
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

খুলনার তেরখাদা উপজেলার ৪নং সাচিয়াদহ ইউনিয়নের উত্তর কুশলা গ্রামে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ের কবল থেকে রক্ষা পেলেন সুখীয়া খাতুন।

এক সূত্রে জানা যায়, গত ১৪ মে রাত সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলার উত্তর কুশলা গ্রামের মৃত ইলিয়াস তরফদারের অপ্রাপ্ত বয়স্ক কন্যা সুখীয়া খাতুনের সাথে একই গ্রামের হাবিবুর লস্কারের পুত্র লস্কর শাহীনের বিয়ে সম্পাদনের কাজ চলছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ লিটন আলী পুলিশ ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে যান এবং ঘটনার সত্যতা পেয়ে বর, কাজী এবং বিবাহের স্বাক্ষীকে আটক করেন।এরপর উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ লিটন আলী ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে বাল্য বিবাহ নিরোধ আইন-২০১৭ অনুযায়ী নিকাহ রেজিষ্টার মোঃ জাহাঙ্গীর আলম কে ২০ হাজার, বর লস্কর শাহীন কে  ১০ হাজার ও বিয়ের স্বাক্ষী মোঃ নিয়ামত আলী কে ৫হাজার টাকা জরিমানা করেন। তিনি জানান, যে বা যারা বাল্য বিয়ের সাথে জড়িত থাকবে তাদের প্রত্যেক কে আইনের আওতায় এনে জেল জরিমানা করা হবে।

ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনাকালে উপস্থিত ছিলেন থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ সালেকুজ্জামান, এসআই শেখ আবু সাইদ।

 

মোঃ রবিউল ইসলাম

তেরখাদা, খুলনা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *